AlokitoBangla
  • ঢাকা রবিবার, ২৫ জুলাই, ২০২১, ১০ শ্রাবণ ১৪২৮

সিরাজগঞ্জে উপজেলা চেয়ারম্যান ও মেয়রকে হুঁশিয়ার করে দেয়া বক্তব্য ভাইরাল


FavIcon
মোঃ জহুরুল ইসলাম,(নিজেস্ব প্রতিবেদক) সিরাজগঞ্জ:
প্রকাশিত: জুন ১৪, ২০২১, ০২:০৪ পিএম
সিরাজগঞ্জে উপজেলা চেয়ারম্যান ও মেয়রকে  হুঁশিয়ার করে দেয়া বক্তব্য ভাইরাল
সিরাজগঞ্জে উপজেলা চেয়ারম্যান ও মেয়রকে হুঁশিয়ার করে দেয়া বক্তব্য ভাইরাল

সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রীর স্মরণ সভায় বেলকুচি উপজেলা চেয়ারম্যান ও পৌর মেয়রকে হুঁশিয়ারি দেওয়ার বক্তব্য আজ সোমবার (১৪ জুন) সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে।এরআগে, রোববার (১৩ জুন) সন্ধ্যায় বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের প্রসিডিয়াম সদস্য ও সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিমের প্রথম মৃত্যুবার্ষিকীতে শহীদ এম মনসুর আলী অডিটোরিয়ামে আয়োজিত স্মরণ সভায় প্রধান বক্তা হিসেবে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ রাজশাহী বিভাগের সাংগঠনিক সম্পাদক এস.এম কামাল হোসেন বেলকুচি উপজলা চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম সাজেদুল ও পৌরসভার মেয়র সাজ্জাদুল হক রেজাকে হুঁশিয়ার করলেন।এ সময় বিএনপি থেকে আসা বেলকুচি উপজেলা চেয়ারম্যান ও মেয়রকে হুঁশিয়ার করে বলেন, আমি যদি সাংগঠনিক সম্পাদক থাকি কোন কমিটিতে আপনারা ঢুকতে পারবেন না। এস.এম কামাল আরও বলেন, আমি আজ কিছু কথা বলতে চাই। স্মরণ সভায় যদিও এগুলো বলা ঠিক না। ২০০১ সাল থেকে ২০০৮ সাল নেত্রী গ্রেফতার হওয়া পর্যন্ত যারা লড়াই সংগ্রাম করেছেন তাদেরকে নেতৃত্বে নিয়ে আসেন। যারা বিএনপি, খালেদা, তারেক আর জামায়াতের বিরুদ্ধে লড়াই করে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে ২৩৭ সিট লাভ করেছেন তাদের পেট্রোনাইজ করুন। নতুন লোক দলে দরকার নাই।যারা পিঠ বাঁচানোর জন্য বিএনপি থেকে এসেছেন যদি কোন নেতার সাথে থাকেন আগামী সম্মেলনে সেই নেতা কমিটিতে থাকতে পারবে না। আমি যদি সাংগঠনিক সম্পাদক থাকি-তবে আমাকে যদি সাংগঠনিক সম্পাদক থেকে বাদ দিতে পারেন তবে কোন কথা নাই। জেলার কিংবা উপজেলার সভাপতি/সাধারণ সম্পাদক আমার হাতে নেই। কিন্তু বাকি পদগুলো আমি দেখবো।এসময় চেয়ারম্যান ও মেয়রের উদ্যেশ্যে আরও বলেন, বেলকুচি উপজেলা চেয়ারম্যান নাকি বলেন, আমাকে লিখে দিতে হবে। আপনি কবে যোগ দিছেন? প্রশ্ন করেন কামাল। ছাত্রদলের ভিপি ছিলেন। আওয়ামীলীগে এসেছেন। ভদ্রভাবে আওয়ামীলীগ করতে হবে। আপনি বিদ্রোহী প্রার্থী হয়েছেন। কার লোক সেটা আমি জানি না। বিদ্রোহী প্রার্থী হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে দলের পদ থেকে বাদ যাবে। আওয়ামীলীগ করতে পারেন আপত্তি নাই। কিন্তু নিয়মনীতি মেনে করতে হবে।বেলকুচি পৌরসভার মেয়র সাজ্জাদুল হক রেজার নাম উল্লেখ করে কামাল বলেন, পৌরসভার মেয়র হইছেন, যুবলীগ থেকে বাদ দিছে-আমি যদি সাংগঠনিক সম্পাদক থাকি কোন কমিটিতে প্রবেশ করতে পারবেন না।স্মরণ সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য জাহাঙ্গীর কবির নানক। এসময় সদস্য মেরিনা জাহান কবিতাসহ জেলা আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি/সাধারণ সম্পাদক ও সদস্য সংসদ সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

 

 

Side banner

সারাদেশ বিভাগের আরো খবর

Small Banner