AlokitoBangla
  • ঢাকা সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ১১ আশ্বিন ১৪২৯

বিরল রোগে আক্রান্ত শিশু হুমায়রাকে বাঁচাতে চাই পরিবার


FavIcon
মোঃ বিল্লাল হোসেন,কেশবপুর(যশোর) প্রতিবেদক:
প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ১৭, ২০২২, ০৬:২৫ পিএম
বিরল রোগে আক্রান্ত শিশু হুমায়রাকে বাঁচাতে চাই পরিবার
বিরল রোগে আক্রান্ত শিশু হুমায়রাকে বাঁচাতে চাই পরিবার

যশোরের কেশবপুরে বিরল রোগে আক্রান্ত ৫ মাস বয়সী শিশু হুমায়রা খাতুন শরীরে যন্ত্রণা নিয়ে কাতর হয়ে পড়ছে। উপজেলার ত্রিমোহিনী ইউনিয়নের চাঁদড়া গ্রামের অসহায় দিনমজুর মনিরুজ্জামান ও গৃহবধূ ইয়াসমিন সুলতানার কোলজুড়ে জন্ম নেয় শিশুটি। গত ৫ মাস আগে সিজারিয়ান অপারেশনের মাধ্যমে শিশু হুমায়রা জন্মগ্রহণ করে। জন্মের পর মা ইয়াসমিন সুলতানা অনুভব করেন তার মেয়ের ডান বুকে মাংস বৃদ্ধি হচ্ছে। ধীরে ধীরে ডান ঘাড় ও পীঠেও একইভাবে ৬টি মাংসপিন্ড দেখা দেয়। এ অবস্থায় ওই অসহায় দ¤পতি মেয়ে নিয়ে যশোর ও খুলনার বিভিন্ন ডাক্তারের শরণাপন্ন হন। চিকিৎসা নিলেও শিশুটির মাংসপিন্ড কম না হয়ে দিন বেড়েই চলেছে। গত এক মাস ধরে যন্ত্রণায় শিশুটি কান্নাকাটি করে ছটফট করছে। তার কান্নাকাটি দেখে এলাকাবাসীও এখন হতভম্ব।
এমন বিরল রোগের কথা জানতে পেরে সরেজমিন মনিরুজ্জামানের বাড়িতে গিয়ে দেখা যায়, শিশু হুমায়রাকে কোলে নিয়ে তার মা ইয়াসমিনও কান্নাকাটি করছেন। দিনমজুর বাবা মনিরুজ্জামান বলেন, তার মেয়েকে ডাক্তার দেখাতে গিয়ে ইতিমধ্যেই তিনি ধারদেনা হয়ে পড়েছেন। একদিন কাজ না হলে সংসার চলে না। স্ত্রীও সারাক্ষণ মেয়েটিকে নিয়ে বাড়িতে থাকছে। প্রতিবেশীদের সহযোগিতা নিয়ে এতদিন ডাক্তার দেখালেও এখন আর সে ব্যবস্থাও হচ্ছে না। শিশু হুমায়রার মা তার মেয়েকে এ বিরল রোগ থেকে রক্ষা করার জন্য প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন। শিশুটির বাবা মনিরুজ্জামান আরও জানান, তার মেয়ে কোন রোগে আক্রান্ত হয়েছে সেটি ডাক্তাররা ঠিকভাবে শনাক্ত করতে পারেনি। বর্তমানে মেয়েকে ডাক্তার দেখানোর জন্য এখন তার কোন সঙ্গতি নেই। এমতাবস্থায় তিনি দেশের দানশীল ব্যক্তিদের তার কোলের সন্তানকে বাঁচানোর জন্য এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়েছেন।
সহযোগিতা পাঠানোর জন্য শিশুটির বাবা মনিরুজ্জামানের ০১৭৫৮১২৭৪৭৮ নাম্বারে যোগাযোগ করতে পারেন।

 

Side banner