AlokitoBangla
  • ঢাকা সোমবার, ২৪ জানুয়ারি, ২০২২, ১১ মাঘ ১৪২৮

প্রবাসীকে কুপিয়ে হত্যা করলো যুবলীগ নেতা


FavIcon
চট্টগ্রাম,প্রতিবেদক:
প্রকাশিত: ডিসেম্বর ১৮, ২০২১, ০৯:৩৫ পিএম
প্রবাসীকে কুপিয়ে হত্যা করলো যুবলীগ নেতা
আটক যুবলীগ নেতা আবুল হাসেম

চট্টগ্রামের হাটহাজারীতে মাহমুদ হোসেন এলাহী প্রকাশ বাচা (৪০) নামে এক প্রবাসীকে কুপিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে মো. আবুল হাসেম নামে এক যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে। এ সময় মোহাম্মদ মোমেন এলাহী (৩৮) নামে নিহতের এক সহোদর গুরুতর আহত হন।এ ঘটনায় পুলিশ ওই যুবলীগ নেতাকে আটক করেছে। আটক আবুল হাসেম মির্জাপুর ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি।গত শুক্রবার রাত পৌনে ৮টার দিকে চট্টগ্রামের হাটহাজারী উপজেলার ৩নং মির্জাপুর ইউনিয়নের ৫নং ওয়ার্ড কালা বাদশাপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এতে নিহত ও আহত যুবক ওই এলাকার লতু মিয়ার ছেলে। বর্তমানে আহত মোমেন এলাহী চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালে মুমূর্ষু অবস্থায় চিকিৎসাধীন রয়েছেন।ঘটনার খবর পেয়ে হাটহাজারী মডেল থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। এছাড়া ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে মির্জাপুর ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি মো. আবুল হাসেমকে থানা পুলিশ আটক করেছে বলে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন হাটহাজারী সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. শাহাদাৎ হোসেন।নিহতের ভাই মো. মোহসেন ঘটনার বর্ণনা দিতে গিয়ে বলেন, স্থানীয় কালা বাদশাপাড়া জামে মসজিদ ও মাদ্রাসার আর্থিক বিষয় সংক্রান্ত দ্বন্দ্বের জের ধরে তার ভাইকে খুন করা হয়েছে। গত শুক্রবার রাতে বাড়ির পাশে একটি চায়ের দোকানে আমার দুই সহোদর মোমেন এলাহী ও মাহমুদ হোসেন এলাহী বসে ছিলেন। হঠাৎ ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি আবুল হাসেমের নেতৃত্বে একই এলাকার শফি মাস্টারের ছেলে সুমন, কাইয়ুম ও রাশেদসহ ১৫-২০ জনের একটি সন্ত্রাসী দল দেশীয় অস্ত্র নিয়ে এসে প্রথমে ফাঁকা গুলি ছোড়ে এবং দুই সহোদরের ওপর অর্তকিত হামলা করে। একপর্যায়ে চাপাতি দিয়ে তাদের কুপিয়ে রক্তাক্ত গুরুতর জখম করলে তারা মাটিতে লুটিয়ে পড়লে হামলাকারীরা পালিয়ে যায়।পরে স্থানীয়রা আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে অবস্থা সংকটাপন্ন হওয়ায় তাদের প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে চমেক হাসপাতালে পাঠিয়ে দেন কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. তারেকুল মজিদ।এরই মধ্যে রাত সাড়ে ১০টার দিকে চমেক হাসপাতালে মাহমুদ হোসেন এলাহী প্রকাশ বাচা চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন। নিহত প্রবাসী মাহমুদ হোসেন এলাহী পাঁচ মাস আগে মধ্যপ্রাচ্য থেকে দেশে এসেছিলেন। এছাড়া ছোটভাই মোহাম্মদ মোমেন এলাহী চমেক হাসপাতালে মুমূর্ষু অবস্থায় চিকিৎসাধীন রয়েছেন বলে জানা গেছে। ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে হাটহাজারী সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. শাহাদাৎ হোসেন জানান, উপজেলার মির্জাপুর এলাকার একটি মসজিদ-মাদ্রাসা পরিচালনার নিয়ে দ্বন্দ্বের জের ধরে দুই সহোদরের ওপর অতর্কিত হামলার ঘটনা ঘটে। এতে মাহমুদ হোসেন এলাহী প্রকাশ বাচা নামে এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন।এ ঘটনায় এখনো পর্যন্ত নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে মামলা হয়নি, তবে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। পাশাপাশি ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে মো. আবুল হাসেমকে আটক করেছে পুলিশ। তাছাড়া অন্য অভিযুক্তদের গ্রেফতারে পুলিশি অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

Side banner