AlokitoBangla
  • ঢাকা রবিবার, ২৪ অক্টোবর, ২০২১, ৯ কার্তিক ১৪২৮
বৃটিশ বাংলাদেশি সাবিনা হত্যাকাণ্ড

জড়িত সন্দেহে একজনকে গ্রেপ্তারের পর জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে


FavIcon
অনলাইন ডেস্ক:
প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ২৯, ২০২১, ১১:১১ পিএম
জড়িত সন্দেহে একজনকে গ্রেপ্তারের পর জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে

সম্প্রতি বৃটেনে আলোড়ন সৃষ্টিকারী বৃটিশ বাংলাদেশি সাবিনা হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত সন্দেহে পূর্ব ইউরোপিয়ান একজন ডেলিভারি ড্রাইভারকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। তার নাম কোচি স্যালামাজ । ৩৬ বছর বয়স্ক এই কোচি স্যালামাজকে গত রবিবার ইস্ট স্যাসেক্সের ইস্টবর্ণ এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।এরইমধ্যে হত্যাকারীর ছবিও প্রকাশ করা হয়েছে সংবাদ মাধ্যমগুলোতে। স্কটল্যান্ড ইয়ার্ড এই গ্রেপ্তারকে উক্ত হত্যাকাণ্ডের ঘটনার উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি বলে উল্লেখ করেছে। তবে গ্রেপ্তারকৃত ব্যক্তি এ হত্যাকাণ্ডে জড়িত থাকার কথা অস্বীকার করেছে। তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।তদন্তকারী পুলিশের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, সাবিনা হত্যাকাণ্ডের সাথে এ স্যালমাজের যোগসূত্র পাওয়া গেছে। তবে কি কারণে সাবিনা নেসাকে হত্যা করা হয়েছে তা এখনও জানায়নি পুলিশ।এ বিষয়টি নিয়ে অভিযুক্ত হত্যাকারী যে এলাকায় থাকতো সেই এলাকার এক দোকানদার জানান, মাঝে মাঝে তার দোকানে আসতো সেই ব্যক্তি।তখন সেখান থেকে জিনিসপত্র কিনে নিলেও খুব বেশি কথা বলতো না। সব সময়ই চুপচাপ থাকতো।এদিকে এ হত্যাকাণ্ডে বৃটেনের বাঙালি কমিউনিটিতে ব্যাপক প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি করেছে এবং বিভিন্ন স্থানে এ নিয়ে প্রতিবাদ অব্যাহত রয়েছে। এরই মধ্যে এ ব্যাপারে একাত্মতা প্রকাশ করেছেন বৃটেনের হাউজ অব পার্লামেন্টের এমপি টিউলিপ সিদ্দিকসহ আরো অনেকে। তবে যদিও বৃটিশ বাংলাদেশি শিক্ষিকা সাবিনা নেসা হত্যাকাণ্ডকে তুলনা করা হচ্ছে শ্বেতাঙ্গ নারী ‘সারা এভারার্ডের’ হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে। তবুও সারার সেই হত্যাকাণ্ড দিনের পর দিন যেভাবে বৃটিশ গণমাধ্যমের শিরোনাম হয়ে ফিরছিল, সাবিনার ব্যাপারে তেমনটি হচ্ছে না বলে অনেকে অভিমত প্রকাশ করেছেন। উল্লেখ করা যেতে পারে যে, সেই হত্যাকাণ্ডের প্রতিবাদে এবং ঘরের বাইরে নারীর নিরাপত্তার দাবিতে বড় বড় বিক্ষোভ হয়, তাতে বৃটিশ রাজপরিবারের সদস্য ডাচেস অব কেমব্রিজ কেট মিডলটন পর্যন্ত যোগ দিয়েছিলেন।
সম্প্রতি ইস্ট লন্ডন মসজিদের একটি হলে এর প্রতিবাদে একটি সভা হয়েছে। এর আগে দক্ষিণ লন্ডনের যে জায়গায় সাবিনা নেসার দেহ খুঁজে পাওয়া গিয়েছিল, তার কাছেই গত শুক্রবার সন্ধ্যায় এক বিরাট প্রতিবাদ সমাবেশে যোগ দেন শত শত মানুষ। সেখানে তারা মোমবাতি জ্বালিয়ে সাবিনার প্রতি শ্রদ্ধা জানান। সমাবেশে এই হত্যাকাণ্ডের বিচার এবং নারীর বিরুদ্ধে সহিংসতার অবসান দাবি করা হয়।সাবিনা হত্যার সঙ্গে সংশ্লিষ্ট একটি সিসিটিভি ফুটেজ এর আগে প্রকাশ করেছিল লন্ডনের মেট্রোপলিটন পুলিশ। সেখানে একজন টাক মাথার পুরুষকে হাতে কিছু একটা নিয়ে হেঁটে যেতে দেখা যায়। পুলিশ মনে করছে, সাবিনা নেসার হত্যারহস্য উদঘাটনে এই ব্যক্তি খুবই গুরুত্বপূর্ণ। ভিডিও ফুটেজের এই লোকটির পরনে ধূসর রঙের জিন্স এবং কালো জ্যাকেট দেখা যায়। ফুটপাথ দিয়ে হেঁটে যাওয়ার সময় তাকে মাথায় হুড টেনে দিতেও দেখা গেছে।উল্লেখ্য, গত ১৭ সেপ্টেম্বর লন্ডনে খুন হন বৃটিশ-বাংলাদেশি শিক্ষিকা সাবিনা নেসা।

Side banner

প্রবাস বিভাগের আরো খবর

Small Banner